মুখোমুখি বৈঠকে পুতিন- শি জিনপিং, কী আলোচনা হলো?

0
8

জেএন ২৪ নিউজ ডেস্ক: করোনা মহামারির পর প্রথমবার চীনের বাইরে সফর করেছেন প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং। সাংহাই কো-অপারেশন অর্গানাইজেশন (এসসিও) এর শীর্ষ সম্মেলনে যোগ দিতে বুধবার তিনি মধ্য এশিয়ায় পৌঁছান। সম্মেলনের ফাঁকে পূর্ব নির্ধারিত বৈঠক করেন রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে।

ভ্লাদিমির পুতিন শি জিনপিংয়ের উদ্দেশ করে বৃহস্পতিবার বলেছেন, তিনি বুঝতে পেরেছিলেন ইউক্রেনের পরিস্থিতি নিয়ে শি জিনপিংয়ের প্রশ্ন এবং উদ্বেগ রয়েছে। তবে তিনি যে সংঘাতের বিষয়ে ‘ভারসাম্যপূর্ণ’ অবস্থানে ছিলেন সে জন্য প্রশংসাও করেছেন।

রয়টার্স জানায়, যুদ্ধের পর প্রথম মুখোমুখি বৈঠকে শি পুতিনকে তার ‘পুরনো বন্ধু’ বলে অভিহিত করেন। পুতিন শি’কে বলেন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ইউনিপোলার বিশ্ব তৈরির প্রচেষ্টা ব্যর্থ হবে। ইউক্রেন সংকটের ক্ষেত্রে আমরা আমাদের চীনা বন্ধুদের ভারসাম্যপূর্ণ অবস্থানকে অত্যন্ত মূল্যায়ন করি। আমরা এই বিষয়ে আপনার প্রশ্ন এবং উদ্বেগ বুঝতে পেরেছি। আজকের বৈঠকে আমরা অবশ্যই আমাদের অবস্থান ব্যাখ্যা করব।’

চীন ইউক্রেনের বিরুদ্ধে রাশিয়ার অভিযানের নিন্দা করা বা ক্রেমলিনের সঙ্গে সঙ্গতি রেখে এটিকে ‘আগ্রাসন’ বলা থেকে বিরত রয়েছে। রাশিয়া বরাবরই যুদ্ধটিকে ‘একটি বিশেষ সামরিক অভিযান’ বলে আসছে জোরালো ভাবে।

২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেন আক্রমণ করার কয়েক সপ্তাহ আগে শি এবং পুতিনের শেষবার ব্যক্তিগতভাবে দেখা হয়েছিল। সেসময় তারা ‘সীমাহীন’ বন্ধুত্বের ঘোষণা করেছিল এবং পশ্চিমের বিরুদ্ধে আরও সহযোগিতা করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল।

তবুও, বেইজিং বৈশ্বিক অর্থনীতিতে প্রভাবের কারণে উদ্বিগ্ন এবং রাশিয়াকে বস্তুগত সহায়তা না দেওয়ার বিষয়ে সতর্কতা অবলম্বন করেছে। কেননা চীনের নিজস্ব অর্থনীতিতেও পশ্চিমা নিষেধাজ্ঞা আসতে পারে।